জাতীয় সংসদে যাওয়া না যাওয়ার সিদ্ধান্তে বৈঠকে বিএনপি

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশ: 2019-04-08 20:29:00 | রাজনীতি

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির বিজয়ী প্রার্থীদের সংসদে যাওয়া না যাওয়া নিয়ে নানা মেরুকরণ চলছে। জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের ব্যানারে বিজয়ী গণফোরামের দুই সদস্য ইতোমধ্যে সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ নিয়েছেন। তবে, বিএনপির বিজয়ী ৬ সদস্য এখনও শপথ নেয়নি।

দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিলে বিএনপির ৬ নির্বাচিত সদস্য শপথ নিয়ে সংসদে যেতে পারেন বলে রাজনৈতিক মহলে জোর গুঞ্জন রয়েছে।
বর্তমানে রাজনৈতিক এই সব পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করতে সোমবার রাত ৯টায় গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে ২০ দলীয় জোটের বৈঠকে শুরু হয়েছে।

জানা গেছে, ২০ দলীয় জোট শরিকদের সঙ্গে আলোচনা করে তাদের মতামতের ভিত্তিতে সংসদে যাওয়া না যাওয়ার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত আসতে পারে। এছাড়া জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নিয়ে জোটের মধ্যে আস্থা সংকট ও দেশের চলমান রাজনীতি নিয়ে আলোচনায় হতে পারে।
বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শামসুদ্দিন দিদার ও শায়রুল কবির খান বলেন, দীঘ প্রায় ২ মাস পর ২০ দলের বৈঠক হচ্ছে। চলমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা হতে পারে।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সভাপতিত্বে বৈঠকে অংশ নিয়েছেন ২০ দলের সমন্বয়ক ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, জামায়াতে ইসলামীর কর্মপরিষদ সদস্য মাওলানা আব্দুল হালিম, জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) মোস্তফা জামাল হায়দার, কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান সৈয়দ মুহাম্মদ ইররাহিম, এলডিপির মহাসচিব রেদোয়ান আহমেদ, জাগপা সাধারণ সম্পাদক খন্দকার লুৎফর রহমান, খেলাফত মসলিসের আহম্মদ আবদুল কাদের পিপলস লীগের চেয়ারম্যান গরীবে নেওয়াজ, লেবার পার্টির মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, ন্যাপ ভাসানীর আজহারুল ইসলাম, জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের মুফতি মহিউদ্দিন, ডেমোক্রেটিক লীগের সাইফুদ্দিন মুনি, বাংলাদেশ মুলীম লীগ শেখ জুলফিকার চৌধুরী বুলবুল, সাম্যবাদী দলের সাঈদ আহমেদ, জাতীয় দলের এহসানুল হুদা প্রমুখ।
৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত জাতীয় নির্বাচন বিএনপি, জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ও ২০ দল প্রত্যাখ্যান করে নতুন নির্বাচনের দাবি জানায়। একই সঙ্গে সরকার-বিরোধী এ জোটের বিজয়ীরা শপথ না নেওয়ারও ঘোষণা দেন।

জানা গেছে, আগামী ৩০ এপ্রিলের মধ্যে বিএনপির নির্বাচিত সংসদ সদস্যদের শপথ নেওয়ার বাধ্যবাধকতা রয়েছে। পর্দার অন্তরালেও বিএনপির নির্বাচিত ছয়জন সংসদ সদস্যও শপথ নিয়ে সংসদে যাওয়ার বিষয়ে আলোচনা চলছে।

তবে দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি নিয়ে দরকষাকষিতে আটকে আছে চূড়ান্ত ঘোষণা।